চাঁপাইনবাবগঞ্জে আজ থেকে শুরু হচ্ছে ডিজিটাল মেলা

প্রকাশিত: 10:51 PM, June 28, 2020

স্টাফ রিপোর্টার, সৌরাব আলী // 
আজ রবিবার থেকে চাঁপাইনবাবগঞ্জে শুরু হচ্ছে ডিজিটাল মেলা-২০২০ ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে সরকারের উদ্যোগসমূহ অনলাইনে তুলে ধরার লক্ষ্যে ভার্চুয়াল এই মেলার আয়োজন করা হয়েছে।

এই মেলায় থাকছে তথ্য প্রাপ্তি ও সেবা পাবার অবাধ সুযোগ। করোনা ভাইরাসের কারণে সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে এই মেলায় সারাদিন ঘুরলেও করোনা পজিটিভ হবার সম্ভাবনা নেই। সকাল থেকে রাত, সারারাত, সারাদিন যেকোন সময় চাইলেই যতখুশি এই মেলায় যাওয়া যাবে। ইচ্ছামতো ঘোরা যাবে, যে কোন প্যাভিলিয়ানে। যতখুশি সেবা নিয়ে আলোচনা করা যাবে। সেবার জন্য আবেদন করা যাবে।

এবারের মেলার প্রতিপাদ্য হচ্ছে “মুজিববর্ষে আমাদের অঙ্গীকার, প্রযুক্তি এগিয়ে যাবার হাতিয়ার”। প্রযুক্তিকে ব্যবহার করে জনগণের দোঁড়গোড়ায় সেবা পৌঁছে দেবার লক্ষে সরকারের এই উদ্যোগ। চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার ওয়েব পোর্টালে ঢুকে খুব সহজেই এই মেলায় যোগ দেয়া যাবে।

এই জেলায় ৭টি প্যাভিলিয়নে এই মেলায় আছে বিভিন্ন ধরণের স্টল। মুজিব শতবর্ষ, ই-সেবা, ডিজিটাল সেন্টার ও অন্যান্য প্রতিষ্ঠানসমূহ, কোভিড-১৯, বিভিন্ন র্স্টাটআপ ও তরুণ উদ্ভাবকদের উদ্যোগ, শিক্ষা ও কর্মসংস্থান এবং জেলা ব্র্যান্ডিংসহ মোট ৭টি প্যাভিলিয়ন। প্রতিটি প্যাভিলিয়নে আছে একাধিক স্টল। প্রতিটি স্টলের থাকবে প্রয়োজনীয় সকল নাগরিক সুবিধার সমাহার। ই-কৃষি, স্বাস্থ্য, ভূমি, বিভিন্ন লাইসেন্স পাওয়া এবং এই সম্পর্কিত তথ্য পাওয়া যাবে এই মেলায়। করোনা মহামারী থেকে বাঁচতে তথ্যও মিলবে সহজেই। এছাড়াও বিভিন্ন তরুণের উদ্যোগ, শিক্ষা এবং কর্মসংস্থান নিয়ে নানাবিধ তথ্য এবং পরামর্শ পাওয়া যাবে এখানে।

মেলা উপলক্ষে রয়েছে বিশেষ ছাড়। এই তিনদিন কেউ নামজারী করতে চাইলে ই-মিউটেশনের মাধ্যমে অগ্রাধিকার ভিত্তিতে তার নামজারী করা হবে। মেলা উপলক্ষে সেবা পেতে তাৎক্ষণিক ০৭৮১–৬২৫০৮ এই নম্বরে ফোন করে সেবা পাওয়া যাবে।

মেলা উপলক্ষে কুইজ প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত হবে। আগামী কাল সোমবার বিকাল ৩টায় ওয়েব সাইট থেকে কুইজ এর প্রশ্ন সংগ্রহ করে তা ই-মেইল যোগে প্রেরণ করা যাবে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে জেলা প্রশাসনের প্রকাশনা “বঙ্গবন্ধুকে জানি” থেকে প্রশ্ন করা হবে। বিকাল ৪টায় ইমেইল করে উত্তর দিতে হবে। সোয়া চারটার পর কোন ই মেইল গ্রহণ করা হবে না। প্রতিটি উপজেলায় সেরা ৩ জনকে পুরস্কৃত করা হবে। এছাড়াও বঙ্গবন্ধুর অসমাপ্ত আত্নজীবনীর উপর রিভিউ লিখে ঐ ইমেইলে ৩০ তারিখ দুপুর ১২টায় পোস্ট করা যাবে। সেরা ৩জন লেখককে উপজেলা ভিত্তিক পুরস্কৃত করা হবে।

মেলায় সোমবার বিকেল ৩টায় তথ্য প্রযুক্তিই নাগরিক সেবা উন্নতকরণের মূল হাতিয়ার বিষয়ে একটি সেমিনার অনুষ্ঠিত হবে। সেমিনারে এই বিষয়ে প্রবন্ধের পাশাপাশি আলোচনায় অংশ নেবেন বিশেষজ্ঞ দল। সেমিনারে জুম সফটওয়্যার ব্যবহার করেও আলোচকবৃন্দ অংশ নিতে পারবেন।

ভার্চুয়াল এই মেলায় সেবা গ্রহীতা ও সেবা প্রদানকারীর মাঝে নিবিড় সেতুবন্ধন গড়ে তুলে উন্নত বাংলাদেশ গড়ে তুলতে জেলা প্রশাসন, চাঁপাইনবাবগঞ্জ বদ্ধ পরিকর। আজ রবিবার দুপুরে জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত প্রেস কনফারেন্সে এই সব তথ্য জানানো হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন জেলা প্রশাসক এ জেড এম নূরুল হক, অতিরিক্ত জেরা প্রশাসক (সার্বিক ও আইসিটি) এ.কে.এম.তাজকির-উজ-জামান, অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রেট জাকিউল ইসলামসহ অন্যরা।গণমাধ্যকর্মীদের মাধ্যেমে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলার সকল নাগরিককে এই মেলায় অংশগ্রহণের আমন্ত্রণ জানানো হয়।

তথ্য প্রাপ্তির জন্য :১.এ, কে, এম, তাজকির-উজ-জামান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক ও আইসিটি), চাঁপাইনবাবগঞ্জ, মোবাইল নম্বর- ০১৭০৯৯৮৮৫৭১

০২. চন্দন কর, সহকারী কমিশনার (আইসিটি), জেলা প্রশাসকের কার্যালয়, চাঁপাইনবাবগঞ্জ, মোবাইল নম্বর-০১৭৫৬৩১১১৭৭