বুধবার, ২৮ জুলাই ২০২১, ০৯:১১ অপরাহ্ন
ব্র্যাকিং নিউজ :

কিছু পেতে নয় দেবার মানষীকতা নিয়ে পূনরায় মেম্বর প্রার্থী হলেন রফিকুল,

জাহিদুল ইসলাম //
  • প্রকাশের সময় : মঙ্গলবার, ১৫ জুন, ২০২১

জাহিদুল ইসলাম ///

বাকেরগঞ্জ উপজেলার গারুড়িয়া ইউনিয়নের ৪নং ওয়ার্ডের তরুন সমাজ সেবক মেম্বার রফিকুল ইসলাম সিকদার পূনরায় নির্বাচনে অংশ নিয়ে বিপুল ভোটে জয়লাভ করতে সবার দোয়া ও সমার্থন কামনা করছেন।

 

ঐতিহ্যবাহী খয়রাবাদ শিকদার পরিবারের সাবেক মেম্বার মরহুম আঃ রশিদ শিকাদারে সুযোগ্য সন্তান বড় ভাই সাবেক মেম্বার মরহুম মিজানুর রহমান শিকদারের স্নেহের ছোট ভাই রফিকুল ইসলাম শিকদার ও বাবা ও ভাইয়ের স্থালভিসিক্ত হয়ে এলাকাবাসীর সেবায় নিজেকে উজার করে দিয়ে সাধারণ মানুষের আস্থা বিশ্বাস আর্জন করে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন অবহেলীত জনপদ খ্যাত ৪নং ওয়ার্ডটি। সবাই যখন সরকারি বরাদ্দ লুটপাট চুরি স্যাঁচরামীতে ব্যস্ত সময় পার করছেন, সে মুহুর্তে নিজের্স্ব তহবিল থেকে এলাকাবাসির উন্নয়নে অবধানের নজির সৃষ্টি করছেন এই তরুন মেম্বর রফিকুল। তার কয়েকটি নমূনা প্রকাশ না করলেই নয়, দেশে দূর্যোগময় মহামারি করোনা উপলক্ষে সরকার বরাদ্ধ কৃত মালামালের সাথে নিজ অর্থ যুক্ত করে নিজ হাতে রাতের আধাঁরে মানুষের দারে দারে পৌছে দিয়েছেন তিনি এছাড়া সরকার কতৃক বরাদ্দকৃত সকল কিছুর সুসম বন্টন নিশ্চিতে গরিবের মাঝে সঠিক ভাবে পৌছে দিয়েছেন।

 

 

সরকার কতৃক রাস্তার বরাদ্দকৃত টাকার সাথে নিজ অর্থ যোগ করে দিয়ে কাজের পরিধি বাড়িয়েছেন। দায়িত্বে থাকা কালে দুইটা ৪০ দিনের রাস্তা পেয়েছেন তা হলো জিনিয়া তুলাতলা থেকে আঃ ছালাম খান মেম্বরের বাড়ির সামনে পর্যন্ত মোট ১৫০০ ফিট রাস্তার কাজ করেছেন যা কিনা সরকারি বরাদ্দ ছিলো ৭০০ ফিট এছাড়া জিনিয়া খলিফা বাড়ির সামনে থেকে মোঃ খোকন মল্লিকের বাড়ি প্রর্যন্ত মোট ১৭০০ ফিঠ রাস্তার কাজ করিয়েছেন যেখানে সরকার বরাদ্দ ছিলো মাএ ৭০০ফিট। এছাড়া তার প্রচেষ্টায় খয়রাবাদ মিরা বাড়ির রাস্তা সলিং করন, উপজেলা চেয়ারম্যানের বরাদ্দকৃত ৪ লক্ষ টাকার কাজ সরকারি ভাবে মাটি সহ ১০০০ ফিট কাজের স্থলে ১৩০০ফিট কাজ করে অন্য অন্য দৃষ্টান্ত স্থাপন করেন।

 

এছাড়াও নিজের অর্থদিয়ে অনেক রাস্তা মেরামত সরকার কর্তৃক সকল ভাতা, ভিজিডি, রেশনিং কাড সহ সকল সুবিধা বিনা খরচে মানুষের দ্বারে পৌঁছে দিয়েছেন তিনি। এ বিষয়ে তার সাথে আলোচনা কালে তিনি বলেন আমিই শুধু একমাএ মেম্বার যে কিনা মানুষের কাছ থেকে সেবার বিনিময়ে কোন রকম অর্থ বা এক কাপ চায়ের অফারও কোনো দিন কোনো কারনে গ্রহন করিনি, কেউ যদি বলতে পারে এমন কিছু তাহলে ভোটতো চাইবোই না বরংশ তাকে উল্টো জরিমানা দিবো। এমন অঙ্গীকার ব্যক্ত করেই পূনরায় এলাকাবাসীর উন্নয়নে অবদান রাখতে আসন্ন নির্বাচনে মোরগ প্রতীকে সবার দোয়া ও সমার্থন কামনা করছেন।

এই জাতীয় আরোও নিউজ দেখুন

ফেসবুকে আমরা আমাদের ফলোও করুন

© All rights reserved © 2018-2021 VORERCOMILLA.COM
ডিজানাইনার বাই এ,কে আজাদ
themesba-lates1749691102
error: Content is protected !!