ঢাকাTuesday , 10 August 2021

বিশ্বনাথে প্রেমিকার সাথে অভিমান করে আত্মহত্যা

Link Copied!

বিশ্বনাথ প্রতিনিধি : সিলেটের বিশ্বনাথে প্রেমিকার সাথে অভিমান করে বিষপানে মারা যাওয়া যুবকের নাম জিল্লুর রহমান (২২) তিনি উপজেলার খাজাঞ্চী ইউনিয়নের চন্দ্রগ্রাম গ্রামের আঞ্জব আলীর ছেলে।

মোবাইল ফোনের পরিচয় গড়ায় প্রেমে। দীর্ঘদিন পর প্রেমিকাকে বিয়ের ইচ্ছে জানায় প্রেমিক। তখনই বেকে বসেন প্রেমিকা। এতে অভিমান আর ক্ষোভে বিষপান করেন প্রেমিক।

পরে হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু ঘটে তার। ঘটনাটি ঘটে উপজেলায়।

গত রবিবার (৮ আগস্ট) বিকেল সাড়ে ৩টায় সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি। এর আগে, গত বুধবার (৪ আগস্ট) সন্ধ্যায় জিল্লুর বিষপান করলে ওইদিনই তাকে হাতপাতালে ভর্তি করা হয়।

জিল্লুর রহমানের বড় ভাই মুহিবুর রহমান জানান, ‘সিলেট ও চট্টগ্রাম পুলিশ লাইনসহ বিভিন্ন জায়গায় দর্জির কাজ করতো জিল্লুর। প্রায় চার মাস পূর্বে চট্টগ্রাম পুলিশ লাইনে দর্জির কাজে থাকাবস্থায় মুঠোফোনে ঢাকার একটি মেয়ের সাথে পরিচয় হয় তার।

পরিচয় থেকে তারা প্রেমের সম্পর্কে জড়িয়ে পড়ে। সম্পর্কের এক পর্যায়ে সে তাকে বিয়ের ইচ্ছে জানালে, মেয়েটি তাকে বিয়ে করতে অপারগতা জানায়। এতে রাগে-ক্ষোভে জিল্লুর গত বুধবার (৪ আগস্ট) পরিবারের সকলের অগোচরে বিষপান করে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় ওইদিনই আমরা তাকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করি। চিকিৎসাধীন থাকাবস্থায় রবিবার বিকেলে সে মারা যায়।

বিশ্বনাথ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) অমিত সিংহ জানান, ‘আমি এখন সিলেট ওসমানী হাসপাতালে আছি। লাশের ময়নাতদন্ত এখনো শেষ হয়নি। শেষ হলে পরিবারের কাছে লাশ হস্তান্তর করা হবে।

এ বিষয়ে কথা হলে বিশ্বনাথ পুলিশ স্টেশনের অফিসার ইন-চার্জ গাজী আতাউর রহমান বলেন, ‘এ ঘটনায় অপমৃত্যু মামলা করা হয়েছে।

error: Content is protected !!